সাম্প্রতিক পোস্ট

উন্নয়ন

উন্নয়ন। বহুল আলোচিত শব্দ এটি। উন্নয়ন নিয়ে নানাজনের নানা মত, নানান যুক্তি, নানান তত্ত্ব, নানান মডেল! নিশ্চয়ই ওইসব আলোচনায় যাওয়ার অভিপ্রায় নেই আমাদের। আমরা ‘উন্নয়ন’ বলতে সেই উন্নয়ন কর্মসূচিকে বুঝি যার নেতৃত্বে থাকে সাধারণ মানুষ, যে এলাকায় উন্নয়ন কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হয় সেই এলাকার মানুষের কল্যাণের জন্যই পরিচালিত হয় এবং ওই এলাকার মানুষ সেই কর্মসূচিকে নিজের বলে মনে করে। সারাবিশ্বে আজ বিভিন্ন ধরনের উন্নয়ন উদ্যোগ পরিচালিত হচ্ছে। এই উন্নয়ন উদ্যোগগুলো বিভিন্ন মডেলে, বিভিন্ন প্রক্রিয়ায় এবং বিভিন্ন কৌশলে বাস্তবায়িত হলেও বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই এগুলো ‘উপর থেকে চাপিয়ে দেওয়ার নীতি’র আলোকে পরিচালিত হচ্ছে। উপর থেকে চাপিয়ে দেওয়ার কারণে তৃণমূল মানুষের আশা-আকাঙ্খা, চাওয়া, পরামর্শ বা মতামত এসব উন্নয়ন উদ্যোগে বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই প্রতিফলিত হয় না; যদিওবা এই উদ্যোগগুলোর উদ্দেশ্য ও লক্ষ্যই হচ্ছে সামগ্রিক উন্নয়ন সাধন। অন্যদিকে এসব উন্নয়ন উদ্যোগে ‘উন্নয়ন’ শব্দটিকে অনেকসময় ‘সঙ্কোচিত’ করে ফেলা হয় শুধুমাত্র আর্থ-সামাজিক উন্নতির দিকে জোর দেওয়ার কারণে। প্রকৃতপক্ষে, ‘উন্নয়ন’ বলতে সাধারণ মানুষের অর্থনৈতিক, সামাজিক, রাজনৈতিক, সাংস্কৃতিক এবং নৈতিক উন্নয়ন তো বটেই পাশাপাশি এই প্রক্রিয়ায় পরিবেশ উন্নয়নও একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। অনেকে একে টেকসই বা স্থায়িত্বশীল উন্নয়ন বলেন।

উন্নয়ন কর্মসূচি পরিচালনায় সাধারণ মানুষকে সম্পৃক্ত করা, তাদের মতামত, পরামর্শ ও চাহিদাকে গুরুত্ব দেওয়ার মানসিকতা অনেকসময় আমাদের থাকে না। যেকোন কর্মএলাকার উন্নয়ন কর্মসূচি বাস্তবায়নে সেই এলাকার মানুষকে ‘উপকারভোগী’ ছাড়া আমরা কিছুই ভাবতে পারি না। আমাদের কাগজ-কলমে ‘নিদির্ষ্ট কর্মসূচি’ আছে সেটি বাস্তবায়ন করলেই আমরা মনে করি আমাদের অর্জন ১০০% হয়েছে। আমাদের অর্জন পরিমাপ করার জন্য আমরা কাগজে-কলমে নানান নির্দেশক তৈরি। কিন্তু ওই কর্মসূচি আদতেও ওই এলাকার মানুষের জন্য প্রয়োজন কি না, এই কর্মসূচি বাস্তবায়নে মানুষের মতামত আছে কি না কিংবা এ ধরনের কর্মসূচি অন্য আরেকটি উন্নয়ন সংগঠন বাস্তবায়ন করেছে কি না তা দেখার বা ভাববার মানসিকতা ও ইচ্ছা কোনটিই আমাদের নেই। উন্নয়ন কর্মসূচি পরিচালনায় তা ‘ওভারল্যাপিং’ হচ্ছে বারংবার। শুধুমাত্র ‘শব্দ পরিবর্তন’ কিংবা ‘নাম পরিবর্তন’ করে একই ধরনের প্রকল্প, একই ধরনের ধারণা, একই ধরনের লক্ষ্য এবং একই ধরনের উন্নয়ন উদ্যোগ বাস্তবায়িত হচ্ছে অসংখ্যবার। সাধারণ মানুষের তাতে কোন লাভ বা কল্যাণ হয়নি! বরং এসব উন্নয়ন উদ্যোগ অনেকসময় মানুষের জন্য ‘দুর্যোগ’ বয়ে এনেছে। এছাড়া এসব উন্নয়ন উদ্যোগ অনেক ব্যয়বহুলও বটে। বারসিক বিশ্বাস করে সাধারণ মানুষের সম্পৃক্ত করে এবং তাদের ‘শক্তি’কে পুঁজি করে উন্নয়ন পরিচালিত হলে সেটি অনেক বেশি কার্যকর ও ব্যয় সাশ্রয়ী হয়।

বারসিক নিউজ.কম সাধারণ মানুষের ‘শক্তি’কে কাজে লাগিয়ে যে উদ্যোগগুলো কার্যকর হয় তা সবসময় আলোচনায় নিয়ে আসে বা আসবে। মূলত এই প্রত্যয় নিয়েই তার যাত্রা শুরু করেছে। বারসিক নিউজ.কম আশা করে উন্নয়ন দৃষ্টিভঙ্গি হবে ‘সক্রিয় নাগরিক’ তৈরি করা, যারা সামগ্রিক উন্নয়নে ‘পথ প্রদর্শক’ হিসেবে কাজ করে যাবে। বারসিক নিউজ.কম আশা করে বাংলাদেশের প্রতিটি এলাকায় একদিন না একদিন সক্রিয় নাগরিক তৈরি হবে যারা দেশ ও সমাজের সত্যিকার উন্নয়ন সাধনে সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

happy wheels 2
%d bloggers like this: