সাম্প্রতিক পোস্ট

শ্যামনগরে লোকায়ত জ্ঞান চর্চা পরিদর্শনে জার্মান অধ্যাপক

সাতক্ষীরা থেকে মননজয় মন্ডল

চেক রিপাবলিক দেশের ওলোমক বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ওলাফ গুয়েন্থার ও উনার ছেলে জার্মানির শিক্ষার্থী ক্লাউদিয়াস হারন শ্যামনগর উপজেলার বিভিন্ন লোকায়ত জ্ঞান চর্চা ও বারসিক কর্মউদ্যোগ পরিদর্শন করেন সম্প্রতি। তিনি উপজেলার বুড়িগোয়ালিনী ইউনিয়নের দাতিনাখালি বনজীবী নারী উন্নয়ন সংগঠনের বাদাবন সম্ভারের কাঠ বহির্ভুত বনজ সম্পদ দ্বারা উৎপাদিত বিভিন্ন পণ্য সামগ্রী পরিদর্শন করেন এব ং এ সম্পর্কে ধারণা লাভ করেন।

শ্যামনগরে লোকায়ত জ্ঞান চর্চা পরিদর্শনে জার্মান অধ্যাপক (5)

পরিদর্শনের সময় তাঁরা মৌয়ালদের নিকট থেকে মোম ও মধু সংগ্রহের কৌশল ও রীতি নীতি সম্পর্কে ধারণা লাভ করেন। তাঁরা বুড়িগোয়ালিনী আশ্রয়ন প্রকল্পের সার্বিক ব্যবস্থা ও তাদের জীবন-জীবিকার গল্প শোনেন। সেখান থেকে দুপুরে ঈশ্বরীপুর ইউনিয়নের ধুমঘাট গ্রামের বঙ্গবন্ধু জাতীয় কৃষি পদকপ্রাপ্ত কৃষাণী অল্পনা রানীর প্রাণবৈচিত্র্য সমৃদ্ধ কৃষিবাড়ি পরিদর্শনে যান। এসময় অল্পনা রানীর প্রাণবৈচিত্র্য সমৃদ্ধ কৃষি বাড়ীর বিভিন্ন বৈচিত্র্য সম্ভার ঘুরে ঘুরে দেখেন। একইসাথে অল্পনা রানীর স্থানীয় প্রজাতির যে বীজ ব্যাংক সেটা দেখে তারা অভিভূত হন। যেখানে অল্পনা রানী প্রায় দেড় শতাধিক প্রজাতির বীজ বৈচিত্র্য সংরক্ষণ করে রেখেছেন।

শ্যামনগরে লোকায়ত জ্ঞান চর্চা পরিদর্শনে জার্মান অধ্যাপক (3)

পরিদর্শন শেষে অল্পনা রানী জার্মান অতিথিদের নিকট লাল শাক, মিস্টি কুমড়া, লাউ, কলাসিম, বরবটি, ঝিঙ্গা, প্রভৃতির বীজ উপহার দেন। বিকালে বারসিক শ্যামনগর রিসোর্স সেন্টার কার্যালয়ে বীজবৈচিত্র্য ডিসপ্লেবোর্ড, হার্বেরিয়াম ডিসপ্লে অবলোকনসহ পারস্পারিক তথ্য প্রযুক্তি বিনিময় করেন। বিকালে দেবালয় গ্রামে গিয়ে গ্রামীণ নারীদের হাতের কাজ খেজুর পাতার পাটি তৈরির কৌশল ও ব্যবহার বিষয়ক তথ্য চিত্র সংগ্রহ করেন। পরদিন সুন্দরনের কলাকাছিয়া ভ্রমণ করে প্রাকৃতিকপরিবেশ উপভোগ করেন। ৩য় দিন বুড়িগোয়ালিনী আশ্রয়ন প্রকল্পের আদিবাসি মূন্ডা সম্প্রদায়ের মানুষদের জীবন সংগ্রাম পরিদর্শন করেন।

শ্যামনগরে লোকায়ত জ্ঞান চর্চা পরিদর্শনে জার্মান অধ্যাপক (4)

শ্যামনগরের সামগ্রিক অভিজ্ঞতা বিনিময় তথা লোকায়ত জ্ঞান চর্চা পরিদর্শনে সহযোগিতা ও সমন্বয় করেন বারসিক এর আল ইমরান ও মননজয় মন্ডল। পরিদর্শনকালীন সময়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নৃবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী রুবেল মিয়া ভাষান্তর কাজে সহযোগিতা করেন।

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: