সাম্প্রতিক পোস্ট

সরকারি খরচে আইনি সহায়তা প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে যাক

মানিকগঞ্জ থেকে রাশেদা আক্তার

সরকারি খরচে আইনগত সহায়তা, আইনি পরামর্শ ও বিকল্প পদ্ধতিতে বিরোধ নিষ্পত্তি সংক্রান্ত জনসচেতনতামূলক উঠান বৈঠক সম্প্রতি মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার জাগির ইউনিয়নের দিয়ারা ভবানীপুর গ্রামে জেলা আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থার আয়োজনে এবং বারসিক এর সহযোগিতায় অনুষ্ঠিত হয়েছে।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিনিয়র সহকারী জজ এবং জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার সুবর্ণা সেঁজুতি। আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন জাগির ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: জাকির হোসেন, জাগির ইউনিয়ন পরিষদের সংরক্ষিত নারী সদস্য শিউলী আক্তার, বারসিক এর আঞ্চলিক সমন্বয়কারী বিমল রায়, স্থানীয় ব্যবসায়ী মো: দেলোয়ার হোসেনসহ এলাকার নারী-পুরুষ, কিশোরীসহ শতাধিক প্রান্তিক জনগোষ্ঠী।


প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিনিয়র সহকারী জজ ও জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার জনাব সুর্বণা সেঁজুতি বলেন, ‘সরকার বিনা মূল্যে সরকারি খরচে গরিব অসহায় মানুষের জন্য আইনি সহায়তা দিয়ে থাকে। যারা গরিব অসহায়, যাদের কেস চালানোর মত সামর্থ্য নেই তাদের জন্য সরকার এই সহায়তা করে থাকে। অনেক সময় একজন উকিলের সাথে পরামর্শ করার প্রয়োজন হয় কিন্তু টাকার অভাবে আপনি কোনো উকিলের কাছে যেতে পারেন না। কারণ উকিলের কাছে পরামর্শ করতে গেলেই আপনাকে টাকা গুনতে হবে। তখন আপনি লিগ্যাল এইড অফিসে আসবেন।’ তিনি আরও বলেন, ‘এমন অনেক সমস্যা আছে যে সমস্যা স্থানীয় মাতব্বর বা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের পক্ষে সমাধান করা সম্ভব নয় তখন আপনি লিগ্যাল এইড অফিসে আসবেন। আমরা আপনার সমস্যা সমাধানে সহযোগিতা করবো। সরকার সম্পূর্ণ বিনা খরচে আপনার কেস পরিচালনা করবেন। শুধু কেস নয় যে কোন ধরণের আইনি পরামর্শ ও বিরোধ নিষ্পত্তির জন্যও আপনারা লিগ্যাল এইড অফিসে আসতে পারেন।’
জাগির ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো: জাকির হোসেন বলেন, ‘আজ এখানে সরকারি আইনি সহায়তা বিষয়ে জনসচেতনতামূলক উঠান বৈঠক আয়োজন করেছে। প্রতিটি ইউনিয়নে লিগ্যাল এইড কমিটি আছে। সরকার গরিব অসহায় মানুষের জন্য বিনা মূল্যে আইনি সহায়তা দিচ্ছে। আপনারা লিগ্যাল এইড অফিসে যাবেন আপনাদের আইনি পরার্মশ ও সহযোগিতার জন্য।’


সংরক্ষিত নারী সদস্য জনাব শিউলী আক্তার বলেন, ‘সরকারি আইনি সহায়তা বিষয়ে লোকজন যতবেশি জানতে পারবে তত তারা সেবা পাওয়ার জন্য যোগাযোগ করবে। এর জন্য প্রচার করতে হবে। আপনারা আজকে এই বিষয়ে বিস্তারিত জানতে পারবেন। জেনে উপকৃত হবেন।’


এর আগে বারসিক’র আঞ্চলিক সমন্বয়কারী বিমল রায়ের সঞ্চালনায় আলোচনার শুরুতেই স্বাগত বক্তব্য রাখেন বারসিক এর প্রোগ্রাম অফিসার রাশেদা আক্তার। তিনি বলেন, ‘সরকারী আইনগত সহায়তা প্রদান সংস্থা প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জন্য জন্য বিনা খরচে আইনি সহায়তা প্রদান করে থাকে। শুধু কেস পরিচালনা নয় যে কোনো ধরণের আইনি পরার্মশ ও বিরোধ নিষ্পত্তির কাজও সংস্থাটি করে থাকে। যত বেশি আইনি সহায়তা সম্পর্কে লোকজন জানতে পারবে ততবেশি মানুষ এর উপকার ভোগ করতে পারবে।’


উঠান বৈঠক শেষে জাগির ইউনিয়নের জাগির-কৃষ্ণপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে সরকারি খরচে আইনগত সহায়তা বিষয়ে শিক্ষার্থীদের অংশগ্রহণে শিক্ষামূলক সেশন অনুষ্ঠিত হয়। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জনাব মো: রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে একশ দশ জন মিক্ষার্থী সেশনে অংশগ্রহণ করেন।

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: