সাম্প্রতিক পোস্ট

প্রজন্মের কার্বণ নিরপেক্ষ জীবন যাপন পারে সবুজায়িত ধরণী গড়তে

মানিকগঞ্জ থেকে আছিয়া আক্তার
বিশ্ব পরিবেশ দিবস। প্রতিবছর ৫ জুন রাষ্ট্রীয় এবং রাজনৈতিক কর্মউদ্যোগের পাশাপাশি বেসরকারি প্রতিষ্ঠান এবং সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনগুলো দেশ ব্যাপী জনসচেতনতার লক্ষ্যে দিবসটি পালন করা হয়। দিবসটির এবারের প্রতিপ্রাদ্য “আসুন প্লাস্টিক দূষণ বন্ধ করি, প্লাস্টিক পুনঃব্যবহার করি, না পারলে বর্জন করি”। পরিবেশ দিবস ২০১৮ উপলক্ষে সরকারি কর্মসুচির সাথে সমন্বয় রেখে বেসরকারি সংগঠনগুলো নানা কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।

1বেসরকারি গবেষণা প্রতিষ্ঠান বারসিক এর আয়োজনে সিংগাইর উপজেলার চর জামালপুর-২ ব্র্যাক শিশুনিকেতন এ শিশু-কিশোরদের সাথে প্রজন্ম যাত্রার অংশ হিসেবে আন্তঃপ্রজন্ম সংলাপ, প্রকৃতি ও পরিবেশ বিষয়ক চিত্রাংকন ও পরিবেশ বিষয়ক কবিতার আয়োজন করা হয়েছে। ৫ জুন ২০১৮ সকাল ১১.৩০-১.৩০মি. পর্যন্ত বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে শিশু-কিশোরদের মাঝে চিত্রাংকন, আবৃত্তি ও সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে বিজয়ী এবং অংশগ্রহণকারীদের মাঝে পরিবেশবান্ধব বৃক্ষ দিয়ে তাদেরকে পুরুষ্কৃত করা হয়। পুরুষ্কার বিতরণিতে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক পিয়ারা বেগমের সভাপতিত্ত্বে বক্তব্য রাখেন সিংগাইর উপজেলা কৃষি উপসহকারি কর্মকর্তা মো. সিকান্দার আলী, বারসিক সিংগাইর রিসোর্স সেন্টারের সমন্বয়কারি শিমুল কুমার বিশ্বাস, বারসিক কর্মকর্তা মো. নজরুল ইসলাম, নারী নেত্রী শিরিন আক্তার, যুব প্রতিনিধি আশিষ কুমার সরকার, প্রমুখ। চিত্রাংকন ও আবৃত্তিতে পুরুষ্কৃত হয় সানজিদা আক্তার, সোহানা ও রুনা আক্তার, অনিকা আক্তার, রুপালি আক্তার ও আলো আক্তার। প্রতিযোগীতায় মোট ৬৮ জন অংশগ্রহণ করেন। প্রত্যেকেই পরিবেশবান্ধব বৃক্ষ প্রদান করা হয়।

2বক্তারা বলেন প্লাস্টিক এর ব্যবহার দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। শুধু তাই নয় প্রতিদিন যে বর্জ্য তৈরী হয় তার ১০ ভাগ প্লাস্টিক। প্রতি বছর বিশ্ব ব্যাপি প্রায় ৫০০ বিলিয়ন প্লাস্টিক ব্যাগ ব্যবহার হচ্ছে। যার মধ্যে প্রায় ৮ বিলিয়ন প্লাস্টিক সমুদ্রে পতিত হয়। যা পরিবেশের জন্য মারাত্মক হুমকি স্বরুপ। আবার শিল্পোন্নত দেশগুলো বায়ুতে কি পরিমাণ কার্বণ নির্গত করছে তা পরিমাপ করা কঠিন। যদিও ধনী দেশগুলো প্রতিবছর জলবায়ু সম্মেলনে এটি হ্রাস করার প্রত্যয় করেন কিন্তু কার্যত বাস্তবায়ন নেই। এই বিপদ ধেয়ে আসছে বাংলাদেশেসহ স্বল্পোন্নত দেশগুলোর ওপর এবং আমরা ঝুকির মধ্যে প্রথমে। অংশগ্রহণকারিরা প্রত্যয় ব্যক্ত করেন যে, আমরা কার্বননিরপেক্ষ জীবন যাপন করব এবং সবুজায়িত ধরণী গড়ব।

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: