সাম্প্রতিক পোস্ট

কৃষক সম্মেলনে কৃষকের বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি প্রদান

সিংগাইর, মানিকগঞ্জ থেকে শিমুল বিশ্বাস

গতকাল সিংগাইর উপজেলার বায়রা ইউনিয়নের জজ বাড়িতে অনুষ্ঠিত কৃষক সম্মেলনের মাধ্যমে এলাকার ৯ জন কৃষককে সম্মাননা প্রদান করা হয়েছে। বেসরকারী গবেষণাধর্মী প্রতিষ্ঠান বারসিক এবং বায়রা ইউনিয়ন কৃষি উন্নয়ন সংগঠনের পক্ষ থেকে স্থায়িত্বশীল কৃষি, শিক্ষা ও সাংগঠনিকভাবে বিশেষ অবদান রাখায় এলাকার বিভিন্ন সংগঠনের কৃষকরে হাতে তুলে দেওয়া হয় সম্মাননা স্মারক।

IMG_20180930_124623

বায়রা ইউনিয়ন কৃষি উন্নয়ন সংগঠনের কর্তৃপক্ষের দৃষ্টিতে আদর্শগ্রাম সংগঠনের সভাপতি কমলা বেগম বৈচিত্র্যময় বীজ সংরক্ষণে, জামালপুর মধ্যপাড়া সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আ: সামাদ খান এবং গাড়াদিয়া কৃষক কৃষাণি সংগঠনের সভাপতি মো. মোজাম্মেল হক প্রায়োগিক কৃষি গবেষণায়, বায়রা কৃষক কৃষাণি সংগঠনের সভাপতি রোকেয়া বেগম মানসম্মত জৈব সার উৎপাদনে, নয়াবাড়ি আদর্শগ্রাম কৃষক কৃষাণি সংগঠনের সহ-সাধারণ সম্পাদক জয়তুন বেগম নিরাপদ খাদ্য উৎপাদনে, জামালপুর মধ্যপাড়া কৃষক কৃষাণী সংগঠনের সদস্য আবু আসাদ খাঁ বৈচিত্র্যময় সবজি চাষে, নয়াবাড়ি কৃষক কৃষাণী সংগঠনের সহ-সভাপতি মো. ইব্রাহিম মিয়া প্রাণবৈচিত্র্য সংরক্ষণে, নয়াবাড়ি কৃষক কৃষাণি সংগঠনের সভাপতি মো. ইমান আলী শ্রেষ্ঠ সংগঠক হিসাবে এবং নয়াবাড়ি আদর্শগ্রাম কৃষক কৃষাণি সংগঠনের সাংগঠনিক সম্পাদক, মো. শেখ আবু সায়েম শিশু শিক্ষা বিকাশে বিশেষ অবদান রেখেছেন। তাই এসব গুণী মানুষদের উৎসাহ বৃদ্ধিতে এবং এলাকায় নতুন উদ্যোগী মানুষের আগ্রহ সৃষ্টিতে এ সম্মাননা প্রদান করা হয় বলে মন্তব্য করেন বাযরা ইউনিয়ন কৃষি উন্নয়ন সংগঠনের কতৃপক্ষ।

IMG20180930141715

কৃষকদের সম্মাননা প্রদান ছাড়াও কৃষক সম্মেলনে ইউনিয়ন কৃষক সংগঠনের উদ্যোগে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। কৃষক নেতা মো. ফরহাদ হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বায়রা ইউনিয়নের প্রাক্তন চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা দেওয়ান মনিরুজ্জান হিরু। এছাড়া উক্ত আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন, জেলা কৃষি উন্নয়ন সংগঠনের সভাপতি করম আলী মাষ্টার, ইউনিয়ন কৃষি উন্নয়ন সংগঠনের সভাপতি মো. রোস্তম আলী, ইউনিয়ন কৃষক সংগঠননের কোষাধ্যক্ষ ইমান আলী, সহ সভাপতি রোকেয়া বেগম, ইউনিয়ন কৃষক কৃষক লীগের সভা জসিমউদ্দিন আহম্মেদ, বারসিক কর্মকর্তা মাসুদুর রহমান, শাহীনুর রহমান, বিউটি সরকার, গাজী শাহাদৎ হোসেন বাদল, শারমিন আক্তার প্রমুখ।

IMG_20180930_122931

আলোচনা সভায় কৃষকদের পক্ষ থেকে এলাকার কৃষি বিষয়ক বিভিন্ন সমস্যাসহ কৃষক তথা কৃষি উন্নয়নের বিভিন্ন দাবি তুলে ধরা হয়। বিশেষ করে কৃষক প্রতিনিধিগণ বায়রা, গাড়াড়িয়া এবং বায়রা কাঁচা বাজার সহ বায়রা মাঝি পাড়া ও বায়রা স্কুল মাঠের জলাবদ্ধতা নিরসনের স্থায়ী সমাধানসহ মানসম্মত বীজ, ইউনিয়ন কৃষি বাজেটে বরাদ্দ বৃদ্ধি ধানসহ ফসলের লাভজনক মূল্য প্রাপ্তিতে ইউনিয়ন পর্যায়ে সরকারি ক্রয় কেন্দ্র চালু করার দাবি জানান। কৃষকদের দাবি প্রেক্ষিতে প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, “যে দাবি কৃষকদের পক্ষ থেকে করা হয়েছে তা যৌক্তিক। তবে আপনাদের একটা সুখবর দিতে চাই যে, বিগত দিনে নয়াবাড়ি মাঠের পানি নিস্কাষণের জন্য মাননীয় সাংসদ মমতাজ বেগমের নিকট যে দাবি কৃষকদের পক্ষ থেকে করা হয়েছিল তা অনুমোদিত হয়েছে। অর্থাৎ নয়াবাড়ি আদর্শগ্রামের মাঝখানে পাইপসহ বক্সকালভার্ট তৈরির জন্য তিন লাখ টাকা বরাদ্দ দিয়েছেন। এছাড়া বায়রা এলাকার অন্যান্য মাঠের জলাবদ্ধতা নিরসনের জন্য বায়রা ইউনিয়নের পক্ষ থেকে জোরালো আবেদন জানানো হয়েছে মাননীয় সাংসদের নিকট। ”

অনুষ্ঠানের শুরুতে কৃষক সংগঠন কর্তৃক আয়োজিত প্রাণবৈচিত্র্য মেলার শুভ উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি বায়রা ইউনিয়নের প্রাক্তন চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা দেওয়ান মনিরুজ্জান হিরু। এরপর স্টল পরিদর্শন করে প্রধান অতিথি স্থায়িত্বশীল কৃষি চর্চা, প্রাণবৈচিত্র্য সংরক্ষণ ও গ্রামীণ নারীর তৈরি হস্তশিল্পের ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, “এক সময় আমাদের দেশের কৃষি ছিল কৃষকের নিয়ন্ত্রণে। বর্তমানে আধুনিক কৃষি সেই জায়গা দখল করে নেওয়ায় কৃষক বিপাকে পড়েছে। কারণ একদিকে বেড়েছে উৎপাদন খরচ, কমেছে খাদ্যের গুণগত মান। তাই প্রত্যেক কৃষকের উচিৎ আধুনিক কৃষির পাশাপাশি জৈব কৃষি চর্চা বৃদ্ধি করা। আর এ বিষয়ে অবদান রাখতে পারে আপনাদের মত গুণী কৃষক।”

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: