সাম্প্রতিক পোস্ট

স্থানীয় বীজ সংরক্ষণ করি

রাজশাহী থেকে উত্তম কুমার

সম্প্রতি বারসিক’র উদ্যোগে রাজশাহীর মোহর গ্রামে একটি সবজি বীজ বিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় বারসিক প্রতিনিধিসহ গ্রামের প্রায় ৩৫ জন নারী অংশগ্রহণ করেন।

সভায় বীজ সংরক্ষণ, রক্ষা ও বীজ বিনিময়ের প্রয়োজনীয়তা সম্পর্কে আলোচনা করা হয়। বীজ বিনিময় সফলতা সর্স্পকে জানানো হয়।তাঁরা একে অপরের সবজী বীজ বিনিময় করেন।সভায় অংশগ্রহণকারী নারীরা জানান, তাদের কারো বাড়িতে ১৫ প্রকার বীজ আছে, আবার কারো বাড়িতে ১০ প্রকার বীজ আছে। যাদের বীজ বেশি আছে তারা অন্য পরিবারের সাথে বীজ বিনিময় করেন।

অংশগ্রহণকারী রিমা জানান, তাঁর বাড়িতে ১৭ প্রকার সবজি বীজ আছে। তিনি তাঁর এই সবজি বীজ একই গ্রামের সুনেতাকে প্রদান করেন। কারণ সুনেতার কাছে মাত্র ৭ ধরনের বীজ ছিলো। তিনি আরও জানান, বারসিক’র সাথে কাজ করার পর থেকে তারা স্থানীয় সবজির বীজ গুরুত্ব বুঝেছেন এবং এ বীজ সংরক্ষণ ও বিনিময় করেন পরস্পরের সাথে যাতে করে এলাকায় বীজের কোন সমস্যা না হয়। এই প্রসঙ্গে রিমা বলেন,‘বাজার থেকে এখন আমরা আর বীজ কিনি না। কারণ আমাদের কাছে বীজ আছে। আমরা বীজ সংরক্ষণ করি এবং এ বীজ বর্ধনের কাজও করি। তাই তো আমরা নেক প্রকার সবজি উৎপাদন করি।’

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: