সাম্প্রতিক পোস্ট

মানিকগঞ্জে হুইলচেয়ার পেলো ভিন্নভাবে সক্ষম ব্যক্তি

ঘিওর, মানিকগঞ্জ থেকে সুবীর কুমার সরকার
বারসিক’র সহায়তায় ঘিওরের নালী ইউনিয়নে গাংডুবী ও বানিয়াজুরী ইউনিয়নের কাকজোর গ্রামের ২ জন ভিন্নভাবে সক্ষম ব্যক্তিকে স্থানীয় প্রশাসন থেকে হুইলচেয়ার সংগ্রহ করা হয়েছে। গাংডুবী কৃষক সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক প্রফুল্ল কুমার মন্ডল (৬৯) ঘিওর উপজেলার সমাজ সেবা অফিস থেকে জন্য হুইলচেয়ারগুলো সংগ্রহ করা হয় বলে জানান।


এর আগে হুইল চেয়ার পাওয়ার জন্য সমাজসেবা অফিসে এই ২ জন ভিন্নভাবে সক্ষম ব্যক্তি আবেদন করেন। এই প্রসঙ্গে ঘিওর উপজেলার সমাজসেবা অফিসার মো. আব্দুল মান্নান বলেন, ‘হুইল চেয়ার দিতে পেরে আমিও খুশি। আরো সুযোগ আসলে দেবার ব্যবস্থা করা হবে। দু’জন ব্যক্তিই সেরিব্রাল পালসি প্রতিবন্ধি ব্যক্তি হিসেবে চিহ্নিত।


এই দু’জন ভিন্নভাবে সক্ষম ব্যক্তি মধ্যে কাকজোর গ্রামের রাব্বি হোসেন (১৩) কথা বলতে পারে না। সে সারাদিন ঘরেই থাকে। বের হতে পারেনা কোথাও। চলাচলও করতে পারেনা। এই চেয়ার পাওয়ার পর সে বাইরে বের হতে পারবে বলে তার পরিবারের সদস্যরা জানান। তারা আরও জানান, রাব্বি বাইরে বের হলে তাঁর চোখে মুখে হাসি ফোটে। রাব্বির বাবা হায়দার আলী বলেন, ‘আমার ছেলের জন্মের সময় মাথায় আঘাত পেয়েছিল। এরপর অনেক চিকিৎসা করেছি কোন কাজ হয়নি। বারসিক’র সহায়তায় যে উপকার পেলাম তা ভুলবো না কোনদিন।’


অন্যদিকে ঘিওর উপজেলার গাংডুবী গ্রামের সিয়াম (১০) আরেকজন ভিন্নভাবে সক্ষম ব্যক্তি। তাঁর বাবা আয়নাল বলেন, ‘আমার ছেলের জন্মের সময় মাথায় আঘাত পেয়েছিল। ছেলের জন্য হুইল চেয়ার পেয়ে আমি খুব খুশি। এবার আমি ছেলেকে চেয়ারে করে বাড়ির বাইরে নিতে পারবো, চুল কাটাতে নিতে পারবো।’ তিনি আরও বলেন, ‘যদি কোন পরিবারে এরকম শারীরিক ও মানসিক প্রতিবন্ধি ব্যক্তি জন্ম নেয় তাহলে তাকে পরিবারের বোঝা না ভেবে যতটা সম্ভব তাকে সময় দেওয়া উচিত এবং তার পাশে থাকা উচিত। পরিবারের সমর্থন ও যতœই তাকে মানসিকভাবে শক্ত থাকতে সহায়তা করবে।’

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: