সাম্প্রতিক পোস্ট

তরুণদের বিদেশে উচ্চ শিক্ষা, প্রয়োজন সঠিক দিকনির্দেশনা

রাজশাহী থেকে শহিদুল ইসলাম

বিদেশে উচ্চশিক্ষা এবং উপযোগী বৈচিত্র্যময় পেশা নির্বাচনে প্রতারিত হচ্ছে তরুণরা। অনেকসময় বিদেশের বিশ্ব বিদ্যালয়গুলো সম্পর্কে ভালো ধারণা না থাকা এবং কোন সাবজেক্টে পড়লে ক্যারিয়ার এর উন্নয়ন হবে তা জানে না তরুণ শিক্ষার্থীরা। আর এই সুযোগ নিচ্ছেন কিছু কনসালটেন্সি ফার্ম। ফেসবুকে চটকদার বিজ্ঞাপন এবং তরুণ শিক্ষার্থীদের অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে হাতিয়ে নিচ্ছেন কাড়ি কাড়ি টাকা। অনেকে প্রতারিত হচ্ছেন, পাচ্ছেন না সঠিক নির্দেশনা। রাজশাহীর বড়কুঠি কফিবার সেমিনার হল রুমে গত ১৪ সেপ্টেম্বর যুব শিক্ষার্থীদের দেশে বিদেশে উচ্চ শিক্ষা এবং বৈচিত্র্যময় পেশা বিষয়ক সেমিনারে তরুণরা উক্ত কথাগুলো বলেন। উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠান বারসিক এবং ডিল্ট-ডিসকভার লেটেন্ট টেলেন্ট এর যৌথ আয়োজনে উক্ত সেমিনারে রাজশাহীর আগ্রহী তরুণ শিক্ষার্থীগণ অংশগগ্রহণ করেন।

DYLT-3
স্বেচ্ছাসেবী শিক্ষা সেবা প্রদানকারী সংগঠন ডিল্ট-ডিসভার লেটেন্ট টেলেন্ট এর সিনিউর কনসালটেন্ট এবং সুইডেনের উমিও বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পাশ করা মাহমুদ হাসান সিদ্দিকী সেমিনারে প্রধান বক্তা হিসেবে তরুণদের পরামর্শ প্রদান করেন। তিনি বলেন, ‘একজন শিক্ষার্থী নিজেই তার নিজের কনসালটেন্ট হতে পারে। নিজেই ফাইল খুলে বিদেশের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে আবেদন করতে পারেন। আবেদন করার পর কি কি করতে হবে তা বিশ্ববিদ্যালয় থেকেই বলে দেয়া হয়। সেভাবেই কাজগুলো করলে তাহলে কোন কনসালটেন্সি ফার্মে গিয়ে লাখ লাখ টাকা দেয়া লাগবে না। আবার প্রতারণা হবার সম্ভাবনাও থাকে না।’ তিনি আরো বলেন, ‘বিদেশে উচ্চ শিক্ষা এবং বিভিন্ন দেশে অভিবাসনের জন্য যেকোন পরামর্শ ডিল্ট দিয়ে থাকে। তবে তার জন্য কোন ধরনের কনসালটেন্সি ফি নেয়া হয় না। আমাদের উদ্দেশ্য হচ্ছে বাংলাদেশের তরুণ শিক্ষার্থীরা সঠিক তথ্য জেনে বিদেশে শিক্ষাসহ চাকরির সুযোগগুলো পাক।’

SAM_4163
সেমিনারে অংশগ্রহণকারী তরুণরা বলেন, ‘বিদেশে উচ্চ শিক্ষায় যেসকল কনসালটেন্সি ফার্ম কাজ করছে তাদের জন্য নীতিমালা করা প্রয়োজন। সরকারের তদারকি আরো বাড়াতে হবে। এতে করে তরুণরা প্রতারিত হবে না। সঠিক নির্দেশনার মধ্যে দিয়ে দেশের জন্য ভালো কিছু বয়ে আনতে পারবে।’ একইসাথে সরকারের শিক্ষা মন্ত্রাণলয়ের মাধ্যমে বিদেশে উচ্চ শিক্ষার জন্য গুরুত্বপূর্ণ একটি বিভাগও চালু করার দাবি করেন সংশ্লিষ্ট পরামর্শকগণ।

সেমিনারে দেশের মধ্যে বিভিন্ন বৈচিত্রময় পেশা বিষয়ক বক্তব্য দেন বারসিক আঞ্চলিক সমন্বয়কারী শহিদুল ইসলাম। উপস্থিত ছিলেন ইয়ুথ এ্যাকশন ফর সোসাল চেঞ্জ-ইয়্যাস এর তরুণ সভাপতি শামীউল আলীম শাওনসহ তরুণ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন রেজওয়ান আলতাব রাতুল। সেমিনারে রাজশাহীর ৫০ জনের বেশি তরুণ শিক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেন।

SAM_4172
উল্লেখ্য যে, আন্তর্জাতিক সংস্থা ইউনেস্কোর ‘গ্লোবাল ফ্লো অব টারশিয়ারি লেভেল স্টুডেন্ট’ শীর্ষক প্রকাশিত এক প্রতিবেদন অনুযায়ী ২০১৬ সালে বাংলাদেশ থেকে উচ্চ শিক্ষার জন্য বিদেশে পাড়ি জমিয়েছেন ৬০ হাজারের বেশি শিক্ষার্থী। দিনে দিনে এই সংখ্যা বেড়েই চলেছে। ২০১৮ সাল পেরিয়ে তা লাখ ছাড়িয়েছে।

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: