সাম্প্রতিক পোস্ট

যুব নেতৃত্বই গড়ে তুলবে মানবিক সমাজ

নেত্রকোনা থেকে মো. অহিদুর রহমান
শতবছর আগে কুসুম কুমারি দাস লিখেছিলেন ‘আমার দেশে হবে সেই ছেলে কবে, কথায় না বড় হয়ে কাজে বড় হবে’। নেত্রকোনায় কথায় বড় না কাজে বড় হওয়া ৩৫ জন যুব কিশোরীর সাথে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় সম্প্রতি। যেখানে যুবরা গত দুবছর কিভাবে সমাজের বাধা উপেক্ষা করে মানুষের সেবায় নিজেদেরকে মানবিক কাজে যুক্ত রেখেছেন নেতৃত্ব দিয়েছেন, পরিবেশ-প্রকৃতি-প্রাণসম্পদ রক্ষা করেছেন এবং একে একে তাদের ভালো লাগা ,মন্দভালার গল্প তুলে ধরেন।


আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন বারসিকের পরিচালক সৈয়দ আলী বিশ্বাস। নেত্রকোনা সম্মিলিত যুব সমাজের সভাপতি পার্থ সারথি সরকারসহ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।


নেত্রকোনা উদীচী সম্মেলন কক্ষে নেত্রকোনা সম্মিলিত যুব সমাজ আয়োজন করেন জননেতৃত্বের উন্নয়নে যুবরা কিভাবে তাদের উদ্যোগ বাস্তবায়ন করছেন। আলোচনা সভায় যুব সমাজের ৩৫টি সংগঠনের প্রতিনিধিরা অংশগ্রহণ করেন। তাঁরা নিজ নিজ কার্যক্রম তুলে ধরেন। রক্তের বন্ধনের এস এম ইউসুফ বলেন, ‘মানবিক সহায়তা হিসেবে এ পর্যন্ত ৯৭০০ মানুষের রক্তের গ্রুপ পরীক্ষা করেছি। ৩২১ জনকে রক্ষ দিয়ে সহযোগিতা করেছি। বিপদে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছি। বন্যপ্রাণি ও গৃহপালিত প্রাণির জীবন ও আবাস রক্ষা ও নিরাপত্তায় কাজ করছে নিকু। সে তাঁর মজার অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন।’


করোনাকালিন সময়ে মানুষ যখন ঘরের বাইরে বের হয়না তখন শিশুছায়া, অক্সিজেন, আলোর পথে সাধারণ পাঠাগার, জাগ্রত কিশোরী সংগঠন, স্বপ্ন সারথি, কুসুমকলি যুব সংগঠন, হৃদয়ে কেন্দুয়া, হাওর-নদী-ধান-শালিক যুব সংগঠন সদস্যরা মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে, খাদ্য নিয়ে ছুটে গিয়েছেন তাদের বাড়িতে। নিরাপত্তার জন্য প্রচারণা চালিয়েছে।
যুবরাই যুগে যুগে বিপদে-সংকটে-দুর্যোগে হাতে হাত মিলিয়ে মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে। আগামীর সুন্দর নেত্রকোনা গড়তে যুবরা একটি কর্মপরিকল্পনা তৈরি করেন।

happy wheels 2

Comments

%d bloggers like this: